ভাত-রুটি নয়, ১০ বছর ধরে খাচ্ছেন শুধু ঘাস-কাঠ!

আমাদের দৈনন্দিন খাদ্য তালিকায় ভাত কিংবা রুটি থাকে। শাকসবজি, ভাত, মাছ, মাংস, ডিম খেয়েই পেটপূর্ণ করি আমরা।

কিন্তু এসব খাবার বাদ দিয়ে ভুরা যাদব নামের এক বৃদ্ধ ১০ বছর ধরে খাচ্ছেন শুধু ঘাস, পাতা আর কাঠ! ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের মধ্যপ্রদেশে। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

খবরে বলা হয়, ওই ব্যক্তির নাম ভুরা যাদব শাহডোল। পঞ্চান্ন বছরের ভুরা যাদব থাকেন মধ্যপ্রদেশের শাহডোল জেলার করকটি গ্রামে।

সারা দিন ধরে গ্রামের এ গলি ও গলি ঘুরে বেড়ান ভুরা। গ্রামের মানুষরা তাকে ঘাস, পাতা খেতে দেখতে অভ্যস্ত।

ভুরা দাবি করেন, ছোটবেলা থেকেই একটু একটু করে পাতা এবং কাঠ খাওয়া শুরু করেন। তারপর তা ধীরে ধীরে অভ্যাসে পরিণত হয়ে গেছে।

গত ১০ বছর ধরে ভুরার দৈনন্দিন খাবার এগুলিই। তার কথায়, ‘যতক্ষণ না ঘাস, পাতা বা কাঠ খাচ্ছি ততক্ষণ মনে হয় যেনো কিছুই খাইনি।’

ভুরা অবিবাহিত। অত্যন্ত গরিব। মাঠে যখন গরু বা ছাগল চরাতে যান তখন গাছ থেকে পাতা ছিঁড়ে খেয়ে পেট ভরিয়ে নেন। কাঠ পেলে তাও খান।

এসব খেয়েও নাকি তার কোনো শারীরিক অসুবিধা হয় না। এমনই দাবি করেছেন ভুরা। তেমন কোনো বড় রোগেও আক্রান্ত হননি কখনও।

ভুরার এই ধরনের আচরণকে মানসিক রোগ বলেই দাবি করেছেন চিকিৎসকরা। তাদের মতে, এসব জিনিস পেটের ভেতরে গিয়ে হজম হয় না।

এর পুষ্টিগুণও নেই। ফলে পেটের ভেতরে গুরুতর ক্ষতের সৃষ্টি হতে পারে। যা প্রাণঘাতীও হতে পারে। তবে এতোদিন ধরে এসব খেয়ে কীভাবে সুস্থ রয়েছেন, তা নিয়ে বিস্ময় প্রকাশ করেছেন তারা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *