জেরুজালেম ইসলামিক ওয়াকফের কর্মকর্তাকে গ্রেফতার করেছে ইসরায়েল

পবিত্র আল-আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণের কাছে জেরুজালেম ইসলামিক ওয়াকফের ডেপুটি ডিরেক্টর শেখ নাজেহ বাকিরাতকে গ্রেপ্তার করেছে দখলদার ইসরাইল।

তবে তাকে গ্রেপ্তারের কোনো কারণ জানানো হয়নি এবং ইসরায়েলি পুলিশ এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করেনি। খবর আনাদোলু।

জর্ডান পরিচালিত জেরুজালেম ইসলামিক ওয়াকফ পূর্ব জেরুজালেমের পবিত্র স্থানগুলোর তত্ত্বাবধান করে থাকে। আল-আকসা মসজিদ মুসলিমদের জন্য বিশ্বের তৃতীয় পবিত্র স্থান। ইহুদিরা এলাকাটিকে ‘টেম্পল মাউন্ট’ হিসেবে আখ্যায়িত করে।

তারা দাবি করে আসছে, প্রাচীনকালে মসজিদটির স্থলে দুটি ইহুদি মন্দির ছিল।

জেরুজালেম ইসলামিক ওয়াকফ হল একটি ইসলামিক ধর্মীয় ট্রাস্ট, যাকে কখনও ইসলামিক ধর্মীয় এনডাউমেন্টস অর্গানাইজেশনও বলা হয়।

এটি আল-আকসা মসজিদ ও জেরুজালেমের পুরাতন শহরের টেম্পল মাউন্টের চারপাশে বর্তমান ইসলামিক স্থাপনাগুলো নিয়ন্ত্রণ ও পরিচালনা করে থাকে।

১১৮৭ সালে মুসলমানদের হাতে জেরুজালেম মুক্ত হওয়ার পর থেকে কোনো না কোনো ওয়াকফ আল আকসায় প্রবেশাধিকারের বিষয়টি তত্ত্বাবধান করে আসছে।

সবশেষ সংস্করণটি হল জেরুজালেম ইসলামিক ওয়াকফ। পশ্চিম তীর ও পূর্ব জেরুজালেম দখল হয়ে যাওয়ার পর এটি জর্ডানের হাশেমাইট কিংডম দ্বারা প্রতিষ্ঠিত হয়।

জর্ডানের রাজা বর্তমানে ওয়াকফ পরিচালনার জন্য প্রয়োজনীয় সমস্ত তহবিল সরবরাহ করেন, যা পবিত্র স্থানটির জন্য বেসামরিক প্রশাসন হিসেবে কার্যকর।

এটিকে অবশ্য ইসরায়েল সরকার স্বীকৃতি দিয়ে আসছে। ১৯৬৭ সালের জুন মাসে ছয় দিনের যুদ্ধের সময় ইসরায়েল জেরুজালেমের পুরনো শহর দখল করে। সূত্র : আনাদোলু

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *