তিন বন্ধুর ফোন নিজের কাছে নিয়ে ‘বন্ধ’ রেখেছিলেন ত্ব-হা

এ বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদনানের তিন বন্ধুকে এরইমধ্যে ডিবি অফিসে নিয়ে আসা হয়েছে বলে জানান তিনি

পারিবারিক কারণে গাইবান্ধায় বন্ধুর বাড়িতে আত্মগোপন করেছিলেন বলে পুলিশকে জানিয়েছেন ইসলামি বক্তা আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ আদনান।

শুক্রবার (১৮ জুন) বিকেল ৩টার দিকে রংপুর নগরীর চারতলা এলাকায় প্রথমপক্ষের শ্বশুরবাড়ি থেকে তাকে উদ্ধারের পর মহানগর ডিবি অফিসে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করে একথা জানিয়েছে পুলিশ।

১০ জুন থেকে নিখোঁজ ইসলামী বক্তা আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ আদনান শুক্রবার জুমার নামাজের পর রংপুর নগরির চারতলা এলাকায় তার প্রথমপক্ষের শ্বশুর বাড়িতে ফিরে আসেন বলে জানান ত্ব-হার স্বজনেরা।

খবর পেয়ে বেলা ৩ টার দিকে পু্লিশ ওই বাড়ি থেকে আদনানকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিয়ে যায়।

প্রায় দেড় ঘণ্টা ধরে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের পর পুলিশ বিকেল ৫টার দিকে জানায়, ব্যক্তিগত কারণে গাইবান্ধার ত্রি-মোহনিতে শিহাব নামে এক বন্ধুর বাড়িতে আত্মগোপন করেছিলেন তারা।

তবে কী সেই ব্যক্তিগত কারণ তা পুলিশ এখনই জানাতে রাজি হয়নি।

রংপুর মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার, আবু মারুফ হোসেন জানান, আত্মগোপনের দিন গাড়ির চালকসহ অন্য দুই বন্ধুর মোবাইলফোন আদনানই নিয়ে অফ (বন্ধ) করে নিজের কাছে রাখেন।

এ বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদনানের তিন বন্ধুকে এরইমধ্যে ডিবি অফিসে নিয়ে আসা হয়েছে বলে জানান তিনি। আবু মারুফ জানান, এখন পর্যন্ত যে তথ্যগুলো তারা পেয়েছেন তা যাচাই-বাছাই করছেন।

আদনানকে গ্রেফতার করা হয়েছে কিনা এই প্রশ্নের সরাসরি উত্তর দেননি পুলিশ কর্মকর্তা। তবে বলেছেন, এখনও তাদের ভিকটিম হিসেবে হেফাজতে রাখা হয়েছে।

তরুণ এই ইসলামি বক্তা নিখোঁজ হওয়ার পর তাকে গুমের অভিযোগ তুলে দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টির চেষ্টা করে তার সমর্থকরা। আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে তাকে গুম করা হয়েছে বলেও প্রচারণা চালানো হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *